কেন মগজ ভর্তি এতো ঘৃণা পরস্পরের প্রতি?

ইশিতা দেব ইশন
আমাদের শিক্ষায়? না শেখানোর পদ্ধতিতে? সমস্যা কি চিন্তা-চেতনায়? পারিপার্শ্বিকতায়? আমাদের বেড়ে ওঠায়? ধ্যানধারণায়?

সমস্যাটা কি অপরিকল্পিত প্রশাসনে? বিচারকার্যে? শাসন ব্যবস্থায়? উন্নতিতে নাকি অবনতিতে? সমস্যাটা নীতিনৈতিকতায়? না অজ্ঞানতায়?

সমস্যাটা কি আমাদের মনুষ্যত্ব বোধে? বিশ্বাসে? স্বভাবে? চালচলনে, হাবভাবে, কথাবার্তায়? ক্ষমতায় নাকি অক্ষমতায়?

একসময় ভাবছি, কোথায় বসবাস করছি? কেন করছি? আবার পরক্ষণেই ভাবছি, কেনই বা বসবাস করবো না? এত এত পরিশ্রম, এত ত্যাগ-তিতিক্ষা কি এভাবে বিতৃষ্ণা নিয়ে বিসর্জনের জন্যই হয়েছিলো? তবে অনায়াসে স্বাধীনতা ছেড়ে দিলেই তো হতো! এত উন্নতি, এত আয়োজন কার জন্য হচ্ছে? তারা নেই! আর যারা বাকি আছে, তারাও থাকবে না… সবই বৃথা যাচ্ছে, বিফলে যাবে আগামীতেও! আমরা কি এতই নির্বোধ? একটা ঘটনা যেখানে এক কদম সামনের দিকে নিয়ে যাচ্ছে আমাদের, সেখানে একটা দুর্ঘটনা কদম কদম পিছিয়ে দিচ্ছে গোটা সমাজকে!

যেখানে সম্মানের মূল্য নেই, সাহসিকতার প্রশংসা নেই, আত্মমর্যাদার গুরুত্ব নেই! অথচ আমাদের ইতিহাস, আমাদের স্বাধীনতা সাহসিকতার উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত! বসবাস অযোগ্য বলে যে স্থানকে গালি দিচ্ছি, সেখানে বেশির ভাগ বসবাসকারী আমরাই! তাহলে প্রতিদিন সকালে কেন নিজেরাই নতুন নতুন অভিযোগে জর্জরিত করছি নিজেদের? নির্জীব, অসংবেদনশীল, কিছুটা জম্বির মতো হয়ে বেমালুম ছুটে বেড়াচ্ছি আমরা সারাদিন! যেন এদেশে মরে যাওয়াটা খুব স্বাভাবিক একটা ঘটনা! এখানে যেন একটা দিন বেশি বেঁচে থাকার নামই সৌভাগ্য!

অথচ এমনটা তো হবার কথা ছিলো না! তাহলে কোথায় চেষ্টার কমতি থেকে যাচ্ছে প্রতিবার? কেন পাশবিকতা প্রদর্শনে এতটা ব্যস্ত এই মানুষগুলো? একটা মানুষের মৃত্যু একশত আত্মার মৃত্যু ঘটাচ্ছে চোখের সামনে প্রতিনিয়ত -অথচ বাঁধা দেয়ার জন্য কেউ হাত উঁচু করছে না! কেন? উন্নয়নশীল দেশ যেখানে উন্নত হবার দ্বারপ্রান্তে, সেখানে বর্বরতার পথে পা বাড়াচ্ছে কেন এই জাতি?

কি প্রতিষ্ঠা করতে চাইছি আমরা? কেন চাইছি? কেন ঠেকাতে পারছি না এই অসুস্থ চর্চাগুলো? আর হচ্ছেই বা কেন এমন ঔদ্ধত্যপূর্ণ তাণ্ডব এই দেশে? আসলো কোথা থেকে মগজ ভর্তি এতো ঘৃণা পরস্পরের প্রতি?

সমস্যাটা আসলে কোথায়? সমস্যা কি আমাদের স্বল্প জ্ঞান, নির্বুদ্ধিতা আর বিবেকহীনতায়? নাকি অন্ধভক্তি-শ্রদ্ধা, মেকি দেশপ্রেম আর ভালোবাসায়?

ইশিতা দেব ইশন, প্রভাষক, সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়

  • খোলা জানালা  বিভাগে প্রকাশিত লেখার বিষয়, মতামত, মন্তব্য লেখকের একান্ত নিজস্ব। eyenews.news-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে যার মিল আছে এমন সিদ্ধান্তে আসার কোন যৌক্তিকতা সর্বক্ষেত্রে নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা eyenews.news আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো দায় গ্রহণ করে না।